বাংলাদেশ বিমানের বহরে আগস্টে যুক্ত হচ্ছে বোয়িং ৭৮৭ ড্রীম লাইনার ‘আকাশবীণা’

অনলাইন ডেস্কঃ বিডি খবর ৩৬৫ব ডটকম

বাংলাদেশ বিমানের বহরে খুব শীঘ্রই যুক্ত হতে যাচ্ছে বোয়িং কোম্পানির তৈরী বোয়িং ৭৮৭ নামের এই অত্যাধুনিক যাত্রীবাহী বিমানটি। এই বিমানটির নাম দেওয়া হয়েছে আকাশবীণা। মঙ্গলবার হ্যাম্পশায়ারের ফার্নবোরো বিমানবন্দরে হয়ে গেল এর এয়ার শো। বিখ্যাত বিমান নির্মাতা কোম্পানী বোয়িং বাংলাদেশের জন্য তৈরী এই ‘আকাশবীণা’কেই বেছে নিল প্রদর্শন করার জন্য।

গতকাল আকাশে নিচু দিয়ে উড়ে গিয়ে দর্শকদের মাথার ওপর চক্কর দেয় ‘আকাশবীণা’। কয়েকটি চক্কর দিয়ে আবার নেমে আসে রানওয়েতে। ফার্নবোরোর দ্বিবার্ষিক এই এয়ারশো এভিয়েশন খাতের ক্রেতা ও বিক্রেতাদের কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বোয়িং, এয়ারবাস, সাব, মিৎসুবিসিসহ বিভিন্ন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান তাদের তৈরি উড়োজাহাজ, হেলিকপ্টার ও সামরিক আকাশযান এখানে প্রদর্শন করছে।

বাংলাদেশের জন্য তৈরী ‘আকাশবীণা’কে আকাশে ডিসপ্লে করার জন্য বেছে নেয় বোয়িং কোম্পানী। এর ফলে এই বিমানটির প্রচারনা হয়ে গেল। ফলে এর মধ্য দিয়ে বিমানের মার্কেটিং হয়ে গেল। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী ২০শে আগস্ট আকাশবীণাকে বিমানের কাছে হস্তান্তর করবে বোয়িং। বিমানটি ৪৩ হাজার ফুট ওপরে থাকা অবস্থায়ও ওয়াইফাই, বেশ কয়েকটি টিভি চ্যানেল ও টেলিফোনে কথা বলার সুযোগ পাওয়া যাবে। তবে আকাশবীণার আসন সংখ্যা ইকোনোমিক ক্লাশে ২৫০টি আসন ও বিজনেস ক্লাশে ২১টি আরামদায়ক ফ্ল্যাটবেড আসন রয়েছে। এতে ভ্রমন হবে অত্যান্ত আরামদায়ক ও অপেক্ষাকৃত নিরাপদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *